কবি ও কবিতা / সাইফ আলি

আমার সঙ্গে কিছু শব্দের মেলামেশা ছিলো
যখন তখন তারা ঢুকে যেতো মনের গভীরে
এ বিষয়ে অভিযোগ সবথেকে বেশি ছিলো যার
সে আমার প্রিয়তমা চেয়েছিলো পুরো অধিকার।

অথচ কবির মন ফেড়ে কবে কোন ডাক্তার
পেয়েছে কেবল নারী, গাড়ি, বাড়ি আর সংসার?
শব্দের আনাগোনা কবির শ্বাসের মতো,
প্রিয়তমা সেও এক রূপ কবিতার।

০৪.১০.১৯

আবোল তাবোল / সাইফ আলি

তোমায় যখন খুঁজছি আমি বুকের কাছে বাহুর কারাগারে
তুমি তখন অন্য কোথাও, অন্য কারো দিন যাপনের ঘর
ভাবছি আমি জরিন সুতায় সলমা আঁকা তোমার বিকেল
এবং সকল সন্ধ্যাতারার আলাপরাশি তোমার সাথে…

খুব বেশি কি স্বপ্ন দেখার রাত পেয়েছো আমার মতো
এইযে এখন বারান্দাতে দোল চেয়ারে যেমন আমি 
আমার হাতে কাব্য আছে, চশমা ছুঁয়ে জোসনা নামে!
অনুভুতির চেরাগ জ্বেলে ভাবছি বসে- তোমার হাতে 
আমার লেখা নতুন বইয়ের একটা কপি, পৃষ্ঠা খোলো;
পাতায় পাতায় এই আনাড়ির ফালতু প্রেমের গল্পগুলো
কেমন হলো?

আচ্ছা, তুমি একাই নাকি অন্য কারো বুকের কাছে 
ঠেকিয়ে মাথা বলছো- এসব 
আবোল তাবোল পড়তে আমার ভাল্লাগে না?
তবুও তুমি নতুন বইয়ের সন্ধানে যাও বইমেলাতে
আমার লেখা একটা প্রেমের কাব্য নিয়ে বাসায় ফেরো।

10.02.19

আমি এই রাতের শরীর / সাইফ আলি

গলিত চাঁদের পাশে ধ্যানমগ্ন বৃক্ষের ছায়া,
শব্দের তার ধরে গাঁটছাড়া রাতের পেয়াদা;
আমাকে পোড়ায় তারা অগণিত সারাক্ষণ-
আমি এই রাতের শরীর 
আমি এই মুগ্ধতা বুকে লেপে নিশ্চুপ জেগে থাকা নিঃসঙ্গ রাতের শরীর।

আমাকে ছুঁয়োনা প্রিয়তমা
নির্ঘাত প্রেমে পড়ে যাবে,
নীলাভ শূন্যতায় নিজেকে খোয়াবে।

04.12.18

অন্য কোথাও একা / সাইফ আলি

এই শহরে লক্ষ কোটি মানুষ
সবাই বাঁচে নিজের মতো করে,
হয়তো আমিই পরজীবি এক প্রাণী
টানতে থাকি তোমার সুতো ধরে।

নিজেই নিজের হাত ধরে যে হাঁটে
তার মতো নয় আমার ফিলোছফি,
জীবন কি আর দেয়াল পলেস্তারা
কিংবা কেবল চা চিনি আর কফি?

ভাবতে পারো এই শহরে আমি
বিষণ্ণ এক গাছের নিচে বসে,
এবং তুমি অন্য কোথাও একা
দিনযাপনের অঙ্ক মিলাও কষে।

19.11.18

আর কতদূর রাত্রি নামার / সাইফ আলি

বেশতো আমি যাচ্ছি হেঁটে
আমার সাথে তোমার ছায়া,
হাত বাড়ালেই গল্প হবে
অল্প কিছু বাড়বে মায়া।

বেশতো তুমি হাসতে জানো
হাসতে জানে তোমার কথা,
কেমন দেখো যাচ্ছে ডুবে
সন্ধ্যাবেলার বিষণ্নতা!

আমার ছায়া তোমার আগে
তাই কি তুমি হাঁটছো জোরে,
এ নাও আমি দাঁড়িয়ে গেলাম
হারিয়ে গেলাম তোমার ঘোরে।

এখন তুমি আঁকতে পারো
তোমার চুলে সন্ধ্যা আমার,
এবার তারার বোতাম খোলো
আর কতদূর রাত্রি নামার।

19.11.18

একান্ত বাক্যেরা-২৫ / সাইফ আলি

ফুলেরা সুখি হবে
পাখিরা মেলে দেবে ডানা
শঙ্খ সুখ নিয়ে ভীষণ দৌড়োবে
মিলবে হারানো ঠিকানা।

আঁধারে জোনাকিরা জ্বলবে মিটিমিটি
যেনোবা আকাশের তারা
হঠাৎ খসে পড়ে ঝাওয়ের বুকে পিঠে
অবাক সুখে দিশেহারা।

হালকা এলোমেলো বাতাস বয়ে যাবে
দুলিয়ে শিউলির মোহ,
আমি তা চোখ বুজে মাখবো সারা দেহে
ঘুমোবে জ্বলে থাকা দ্রোহ।

25/10/18

রাতে ফের কথা হবে / সাইফ আলি

রাতে ফের কথা হবে আমাদের
জোছনার আলো মেখে সারাগায়
দাঁড়িয়ে থাকবো আমি একা,
শিউলীর ঘ্রাণ নিয়ে
তুমি এলে বাতাসের শাড়ি গায়
দুলে উঠে কাশবন জানাবে;
কি পোশাক পরে আমি আসবো
শাদা পাঞ্জাবী হলে মানাবে?

রূপোর থালার মতো চাঁদটা
নদীজলে সাঁতরাবে সারারাত
আমি হবো নাওছাড়া মাঝি আর
তুমি হবে দাঁড়বাওয়া দুটো হাত।