কলমের উত্তরাধিকার / ফজলুল হক তুহিন

কবি কাজী নজরুল ইসলামকে

সময়ের পদ্মা বয়ে যায় মহাকাল বঙ্গোপসাগরে
শতাব্দীর দিন আর রাত্রি অবিরত উত্তাল সমরে।

বিশ শতকী আঁধার
অনিশ্চিত, কে দেবে সাঁতার?
অতঃপর তোমার প্রাণের ঝড়ে
শতাব্দীর সুকঠিন অন্ধকার পালালো কোন্ গহ্বরে?

আমাদের কবি
এশিয়ার কবি
পৃথিবীর কবি তুমি
কেননা তোমার আবেগের বৃষ্টিতে সজীব হয় নির্যাতিত, বন্ধ্যা ভূমি।

আমাদের স্বপ্নের সন্তান
আমাদের আত্মার বাদক হে কবি পুরুষ,
শত বছরের রক্ত দীপ্ত হয়, শুদ্ধ হয় তোমার শাশ্বত গান
যখনই ওঠে বেজে।
কাপুরুষ আর নপুংশক যৌবন সমুদ্রে ফিরে আসে
তোমার অক্ষয় প্রাণ ঘষেমেজে।
আর হে প্রেমিক কবি রেখে গেলে কী ব্যথার আরণ্যক
যন্ত্রণার লতাগুল্ম আর বিচ্ছেদের ঝরাপাতা দেখে
ভিজে যায় আমাদের চোখ।

মূলত তোমার জন্ম আমাদের প্রার্থনার কাঙ্ক্ষিত স্মারক
আর তুমি তো একাই আমাদের দুঃসময়ের হন্তারক
আমাদের জঙধরা বিবেকের আলোকিত উদ্বোধক।

এখন তো একুশ শতকী অন্ধকার
কেউ কী আছে প্রস্তুত এখানে করবে হুঁশিয়ার?
তবে আমাদের নির্মাণ-সংহার হোক না তোমার কলমের উত্তরাধিকার।

০৪.০৬.২০০২