বিবেকের প্রতিনিধি / ফজলুল হক তুহিন

পিচের সড়কে হেঁটে চলি, চলে কবির শরীর।
লাইট পোস্টের আলো রাস্তার মসৃণ পিঠে পড়ে
কাঁদে আর কাঁদে। টিপটিপ বৃষ্টির পালক ঝরে
নিসর্গে, সড়কে, জোনাকীর নীল ডানায়, কবির
জমার জমিনে আর চায়ের স্টলের ফুঁটো চালে।
রিকসার টুংটাং শব্দে ও নৈশব্দে ওড়ে পাখি।
সন্ধ্যের নরম অন্ধকার দেহে করে মাখামাখি
আর নক্ষত্রের মুখ চলে যায় দৃষ্টির আড়ালে।

হেঁটে চলি তবু একা গন্ত্যের স্বাপ্নিক প্রান্তরে
কেউ নেই সাথে আর! উর্দ্ধে ওঠে ক্ষোভের হাতুড়ি-
উথাল পাথাল করে শিরা উপশিরা অভ্যন্তরে।
বিস্ফোরণ হয়- ভাঙি বিশ্বাসের আর আস্থার নুড়ি।

কাউকে ভাবব না আর বিবেকের যোগ্য প্রতিনিধি
বলব না কিছু, যদি ভাঙে যে কেউ সৃষ্টির বিধি।

০৯.০৭.১৯৯৯