মহূর্ত / আহসান হাবীব

কখন ভোরের পাখি সোনা মেখে কোমল পাখায়
সুরের সাহানা রেখে বাতায়নে বকুল শাখায়
উড়ে গেল কোন দূর দিগন্তের দারুচিনি বনে
কখন কি আবেগের ঝড় তার বয়ে গেল মনে!

কে আছে অপেক্ষা করে সে পাখির পাখার আওয়াজ,
কোন মুগ্ধ নীলোৎপল ধীরে ধীরে দেয় ভাঁজ
বুকের;
বাসনা কার পার হয়ে বহু অমানিশা
অবাক হৃদয়ে কার আবেগের উজ্জ্বল মনীষা-
আলো দেয়-ভালোবাসে। এখন সহসা মনে হয়
জীবন সুন্দর আর জীবনের এ যাত্রা নির্ভয়!

আষাঢ়ে আশ্বিনে আর পৌষমাঘ ফাল্গুনে এখন
বিচিত্র সুরের স্রোতে একান্তে নির্জনে দুটি মন
এখন বিচিত্র এই পৃথিবীর লোকারণ্য থেকে
সুরের সঞ্চয় তুলে অভীপ্সার আলো দিয়ে এঁকে
অতঃপর জ্বেলে নেবে জীবনের নতুন সবিতা
ফিরেছে নীড়ের পাখি কণ্ঠে তার নতুন কবিতা।

Advertisements